নিষেধাজ্ঞা কমলো ১৮ মাস, তবুও সন্তুষ্ট নন উমর আকমল

ফিক্সিংয়ের প্রস্তাব গোপন করে তিন বছরের জন্য নিষিদ্ধ হন পাকিস্তানি ব্যাটসম্যান উমর আকমল। তবে সেই সাজার বিরুদ্ধে আপিল করেছিলেন তিনি। তার আবেদনে সাড়া দিয়ে গতকাল বুধবার (২৯ জুলাই) তার নির্বাসনের মেয়াদ ১৮ মাস কমানো হয়েছে। অর্থাৎ তিন বছের পরিবর্তে দেড় বছর পরেই ফের বাইশ গজে ফিরতে পারবেন এই পাকিস্তানি ব্যাটসম্যান।

মেয়াদ কমে যাওয়ায় আগামী বছরের আগস্টে আবার খেলা শুরু করতে পারেন আকমল। পাকিস্তানের সুপ্রিম কোর্টের সাবেক বিচারক ও স্বতন্ত্র বিচারক ফকির মোহম্মদ খোকর আকমল ও তার আইনজীবী আদালতে উপস্থিত হয়েছিলেন শুনানির জন্য। সংক্ষিপ্ত শুনানির পরে, দুই সপ্তাহ আগে সংরক্ষিত আপিলের ফলাফল ঘোষণা করেন তিনি।

এপ্রিল মাসে আকমলের উপর দু’টি ম্যাচ ফিক্সিং প্রস্তাবের চার্জ লাগানো হয়। দোষী সাব্যস্ত হওয়ায় ২০ ফেব্রুয়ারি থেকে প্রতিটি অপরাধের জন্য তিন বছরের নির্বাসনে পাঠানো হয় আকমলকে। পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের দুর্নীতিবিরোধী কোডে বলা রয়েছে যে, খেলোয়াড়দের অবশ্যই দুর্নীতির সকল পদ্ধতি কর্তৃপক্ষকে জানাতে বাধ্য থাকতে হবে।

কিন্তু নির্বাসনের বিরুদ্ধে আবেদন করে আকমল অভিযোগ করেছিলেন যে, তার সাথে অন্যায় আচরণ করা হয়েছে। তিনি বলেন, আমি এখনও সন্তুষ্ট নই কারণ অন্য খেলোয়াড়রাও একই অভিযোগে কম শাস্তি পেয়েছিল। ২০১৭ সালে সাবেক পাকিস্তানি পেসারমোওহম্মদ ইরফান একই অপরাধে এক বছরের জন্য নির্বাসিত হয়েছিলেন।

আকমল আরও বলেন, আমি আমার আইনজীবীদের সঙ্গে পরামর্শ করব এবং এরপরে আরও নির্বাসন কমিয়ে আনার চেষ্টা করব।

Print Friendly, PDF & Email