৫ হাজার মানুষের খাবারের দায়িত্ব নিলেন শচীন

করোনা মোকাবেলায় ইতিমধ্যে সরকারি তহবিলে ৫০ লাখ রুপি অনুদান দিয়েছেন ভারতের ক্রিকেট ঈশ্বর শচীন টেন্ডুলকার। তবে দেশবাসীর প্রয়োজনের সময় ওইটুকুতেই দায় সারতে রাজি নন তিনি। দেশজুড়ে লকডাউনে সাধারণ মানুষের প্রাথমিক চাহিদাগুললো যখন পূরণ হওয়া দুষ্কর হয়ে দাঁড়িয়েছে, তখন আবার মহামারীর বিরুদ্ধে মাঠে নামলেন মাস্টার ব্লাস্টার।

স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা আপনালয়ের মাধ্যমে মুম্বাইয়ের ৫ হাজার মানুষের এক মাসের খাদ্যসামগ্রীর দায়ভার নিজের কাঁধে তুলে নিলেন শচীন। স্বয়ং সেচ্ছাসেবী সংস্থাটিই সোশ্যাল মিডিয়ায় এ খবর দিয়েছে।

টুইটবার্তায় আপনালয় জানিয়েছে, লকডাউনকালে যারা সবচেয়ে বেশি কষ্ট পাচ্ছেন, তাদের সাহায্যের জন্য সংস্থার পাশে দাঁড়ানোয় টেন্ডুলকারকে ধন্যবাদ। উনি ১ মাসের জন্য ৫ হাজার মানুষের খাদ্যসামগ্রীর দায়িত্ব নিয়েছেন।

পরে শচীনও সংকটময় মুহূর্তে স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার এভাবে মানুষের পাশে দাঁড়ানোর প্রশংসা করেন টুইটারে। তিনি লেখেন, পীড়িত মানুষের সেবায় নিয়োজিত আপনালয়কে আমার শুভেচ্ছা। ভালো কাজে এভাবেই এগিয়ে যাও।

এর আগে টেন্ডুলকার ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির আপদকালীন তহবিলে ২৫ লাখ রুপি এবং মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে সমান অর্থ দান করেন। তথ্যসূত্র: এনডিটিভি

Print Friendly, PDF & Email