কাবা ছুঁয়ে শপথ করেছিলাম : পতিতাপল্লী উচ্ছেদ করব

নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমান বলেছেন, পবিত্র কাবা ছুঁয়ে শপথ করেছিলাম পতিতাপল্লী পুনর্বাসনের মাধ্যমে উচ্ছেদ করব। আমাকে এক কোটি টাকার অফার দিয়েছিল, একদিনের জন্য নারায়ণগঞ্জ ছেড়ে চলে যাওয়ার জন্য। মেরে ফেলারও হুমকি ছিল।

সোমবার রাতে বন্দরের সিরাজউদ্দৌলা ক্লাব মাঠে বন্দর থানা উলামা পরিষদ আয়োজিত মহাইসলামী সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। সম্মেলনে প্রধান বক্তা ছিলেন আল্লামা নূরুল ইসলাম ওলীপুরী।

শামীম ওসমান আরও বলেন, আমি আমার শপথে স্থির ছিলাম এবং পুনর্বাসনের মাধ্যমে নারায়ণগঞ্জের কলঙ্ক পতিতাপল্লী উচ্ছেদ করেছিলাম।

তিনি বলেন, আমাকে বোমা হামলায় মেরে ফেলার চেষ্টা করা হল। আমার আশপাশে সব শেষ, কেউ নেই, যেখানে দাঁড়িয়েছিলাম তার ডানে বাঁয়ে সব উড়ে গেছে। আমি রক্তের ওপর শুয়েছিলাম। পুরো ছাদ আমার বুকের ওপর পড়েছিল। আমার মনে হল আমি মরে গেছি। কিন্তু ডানদিকের বুকে হাত দিয়ে আল্লাহর কালাম একটি তাবিজ দেখতে পেলাম। আমি বেঁচে গেলাম।

তিনি বলেন, আমি মাটির নিচের জগৎটাকে বড় ভয় পাই। দুনিয়ার বাহাদুরি কয়দিনের। এই মুহূর্তে মারা গেলে কেউ আমার নাম ধরে ডাকবে না। বলবে লাশ। পরকালে ভালো রেজাল্ট করে পাস করতে আল্লাহর সৃষ্টির সেবা এবং তাকে ডাকছি। একবার নয় একশ’বার বলব রাসূলের শানে বেয়াদবি করলে কল্লা ফালাইয়া দিমু।

মাওলানা কবির হুসাইনের সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য রাখেন বন্দর উপজেলা চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা এমএ রশিদ, বন্দর থানার ওসি রফিকুল ইসলাম জেলা জাতীয় পার্টির আহ্বায়ক আবুল জাহের, কাউন্সিলর দুলাল প্রধান, সুলতান আহমেদ প্রমুখ।

Print Friendly, PDF & Email