শরিষার তেল বলে পোড়া মবিল বিক্রি

টাঙ্গাইল : টাঙ্গাইলের ভূঞাপুরে দীর্ঘদিন ধরে জাহাজের পোড়া মবিলকে সরিষার তেল হিসেবে বিক্রি করছিলেন আব্বাস নামের এক ব্যবসায়ী।

বুধবার (২২ জানুয়ারি) সন্ধ্যার দিকে উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আসলাম হোসাইন ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে বিষয়টি ধরে ফেলেন। অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় সরিষার তেল কারখানার মালিক আব্বাসকে এক লাখ ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

স্থানীয়রা জানান, ভূঞাপুর পৌরসভার সামনে অবস্থিত সরিষার তেল তৈরি কারখানা স্থাপন করেন আব্বাস। অন্যসব কারখানার মতোই সেখানে সরিষার তেল তৈরি হয় বলেই সবাই জানতো। তবে অতি মুনাফার লোভে মিলের আড়ালে দীর্ঘ দিন ধরে জাহাজের পোড়া মবিল বিক্রি করা হচ্ছিলো।

উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আসলাম হোসাইন বলেন, ‘পোড়া মবিলকে তেল হিসেবে বিক্রি করার দায়ে অভিযুক্ত ব্যবসায়ী আব্বাস হোসেনকে এক লাখ ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। এসময় ৩৮ ব্যারেল ক্ষতিকারক কেমিক্যাল ধ্বংস করা হয়েছে।’

এদিকে জাহাজের পোড়া মবিলকে সরিষার তেল হিসেবে বিক্রি করার কথা স্বীকার করেছে ব্যবসায়ী আব্বাস। তিনি বলেন, ‘বিষয়টি আমি বুঝতে পারিনি। আমি এগুলো ঢাকা থেকে ক্রয় করি। তারা কোথায় থেকে আনেন তা আমি জানি না।’

একইদিনে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশ, ওজনে কম, খাবারে কাপড় ও বার্নিসের রঙ ব্যবহার করায় উপজেলার ৮ বেকারির মালিককে মোট এক লাখ ৮০ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

Print Friendly, PDF & Email