নানা সংকটে তবুও সেরা লক্ষ্মীপুর ফিশারিজ

নিজস্ব প্রতিবেদক :

লক্ষ্মীপুরের রায়পুর সরকারি মৎস্য প্রজনন ও প্রশিক্ষণ কেন্দ্রটি সংকটে রয়েছে। তবুও গত বছর রেণুপোনা উৎপাদনে ৪৩ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ রেকর্ড অর্জন করেছে। পুরস্কৃত হয়েছেন বিভাগীয় পর্যায়ে।

জানা গেছে, প্রজনন কেন্দ্রটি জনবল সহ নানা সংকটে জর্জরিত। ৮২ জন কর্মকর্তা-কর্মচারির স্থলে রয়েছে ১৭ জন। গভীর নলকূপ ৫টির স্থলে আছে ২টি। সংস্কারের অভাবে পুকুরগুলো ব্যবহারের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে।

শত সংকটের পরও প্রজনন কেন্দ্রটির উর্দ্ধতন বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ওয়াহিদুর রহমান মজুমদারের ঐকান্তিক প্রচেষ্টা আর সততার কারণে রেণু উৎপাদন বৃদ্ধি পেয়েছে। গত বছর এই প্রতিষ্ঠানটি থেকে ৫৭ লাখ ৩০ হাজার ৩’শ ২০ টাকা সরকারি কোষাগারে জমা দিয়েছেন।

কেন্দ্রটির বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ওয়াহিদুর রহমান মজুমদার বলেন, এখানকার সংকট নিয়ে একাধিক বার চিঠি দেওয়া হয়েছে উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষকে। তবুও সমাধান না হয়নি। তারপরেও সকল কর্মকর্তা-কর্মচারিকে নিয়ে কাজ করেছি। যার জন্য গত বছর সেরা হয়েছি। আশা করছি ভবিষ্যতেও এ দ্বারা অব্যহত থাকবে।

Print Friendly, PDF & Email