হারিয়ে গেছে বিপিএলের ড্রোন, উদ্ধার করতে পুরস্কার ঘোষণা

বঙ্গবন্ধু বিপিএলে মাঠের খবর ছাপিয়ে বাইরের খবরই বড় শিরোনাম হচ্ছে। কিছু দিন আগেই যেমন খবরের শিরোনাম হলো ‘বিসিবির খাবার খেয়ে সাংবাদিকরা অসুস্থ’। সিলেট থান্ডারের পেসার ক্রিসমার সান্তোকির ‘নো’ বল বিতর্ক এখনো থামেনি। এ নিয়ে আইসিসির কাছে রিপোর্টও চলে গিয়েছে। বিষয়টি এখন ক্রিকেটের সর্বোচ্চ সংস্থাই খতিয়ে দেখছে। এর মধ্যে আবার চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়াম থেকে ড্রোন ক্যামেরার উধাও হওয়ার খবর বেরিয়েছে। সবমিলিয়ে কেমন যেন গোলমেলে বিপিএল চলছে। অবশ্য এবারই নতুন নয়। এর আগের বিপিএলগুলোও বিতর্কের বাইরে ছিল না। বলা চলে বিতর্ক আর বিপিএল হাত ধরাধরি করে চলে।

বিপিএল ক্রিকেটপ্রেমীদের সম্মুখে নিখুঁতভাবে ফুটিয়ে তুলতে দুটি ড্রোন ক্যামেরা ব্যবহার করা হচ্ছিল। এর একটি আবার খোয়া গেল। ম্যাচ চলার সময়ই স্টেডিয়ামের পাশে পড়ে গেলে অনেক খোঁজাখুঁজির পরও আর পাওয়া যায়নি। ড্রোনটির দাম পাঁচ লাখ টাকা। এই ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার (১৭ ডিসেম্বর) দিনের প্রথম ম্যাচে। ওপর থেকে মাঠের ছবি তুলে ধরতে মাঠের চারপাশেই ড্রোন ক্যামেরা ব্যবহার করছিলেন কানাডার ড্রোন নিয়ন্ত্রক ক্রিস ফিকরেট। এ সময় হঠাৎ একটি চিল এসে ঝাপটা দিলে ভূপাতিত হয় ড্রোনটি। পরে খুঁজতে গিয়ে সেটি আর পাওয়া যাচ্ছে না। তবে খোঁজাখুঁজি অব্যাহত রয়েছে।

ড্রোনটি হারানোর পর এর নিয়ন্ত্রক ফিকরেট সংবাদমাধ্যমকে বলেছেন,‘ ‘আমি যখন ড্রোনটি মাঠের ওইদিকে (উত্তর-পূর্ব দিকে) চালাচ্ছিলাম, তখন হঠাৎ একটি চিল এসে ঝাপটা দিল। তাতে ওই পাশেই পড়ে যায় এটা। পরে আমাদের লোকজন গিয়ে খুঁজেছে। কিন্তু সেটা আর পাওয়া যায়নি। তবে এসব ঘটনা প্রায়ই হয়। আমাদের জন্য নতুন কিছু নয়। আমার আরও ড্রোন আছে। কোনো সমস্যা হবে না।’

ড্রোন হারানো নিয়ে এর মাঝেই গুঞ্জন শুরু হয়েছে। অনেকে বলাবলি করছেন, চিলের ঝাপটায় নয় হঠাৎ যান্ত্রিক গোলযোগের কারণে ড্রোনটি ভূপাতিত হয়েছে। ভাবা হচ্ছে, ড্রোনটির ব্যাটারির চার্জ ফুরিয়ে গিয়েছিল। তবে সে যাই হোক, ড্রোনটি খুঁজে বের করতে তাৎক্ষনিকভাবে ১০ হাজার টাকা পুরস্কার ঘোষণা করা হয়েছে। তারপরও কী ড্রোনটি খুঁজে পাওয়া যাবে?

Print Friendly, PDF & Email