লক্ষ্মীপুরে ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের তান্ডব : অর্ধশতাধিক কাঁচাঘর বিধ্বস্ত : আহত-১০

নিজস্ব প্রতিবেদক : 

ঘূর্নিঝড় বুলবুলের তান্ডবে লক্ষ্মীপুরের রামগতির চরগজারিয়া ও তেলিরচরে প্রায় অর্ধশতাধিক কাঁচাঘর বাড়ি বিধ্বস্ত হয়েছে বলে জানিয়েছেন রামগতি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আবদুল মোমিন।

এসময় কাঁচাপালা ও ঘরে চাপা পড়ে আহত হয়েছে অন্তত ১০জন। আহতদের উদ্ধার করে স্থানীয় ক্লিনিকে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। (১০ নভেম্বর) রোববার সকাল ৯টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

চরআবদুল্লাহ ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান বেলাল হোসেনসহ প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, সকাল ৯টার দিকে হঠাৎ ঘূর্ণিঝড় শুরু হয়। মূহুর্তের মধ্যে চরগজারিয়া ও তেলির চর এলাকায় ছোট-বড় অন্তত ২৫টি ঘর বাড়ি বিধ্বস্ত হয়। শতাধিক গাঁছপালা উপড়ে ও ভেঙ্গে যায়। এছাড়া নদীর জোয়ারের পানি বেড়ে কিছুকিছু এলাকায় ডুকে পড়েছে। পাশাপাশি ঝড়ো হাওয়া ও বৃষ্টি অব্যাহত রয়েছে।

এ দিকে মেঘনার পানি স্বাভাবিকের চেয়ে ২/৩ ফুট উচ্চতায় বৃদ্ধি পেয়েছে। হুমকির মুখে রয়েছে কমলনগর মাতাব্বরহাট এলাকার নদী তীর রক্ষা বাঁধ। পাশাপাশি বৃষ্টি অব্যাহত থাকায় রবিশস্য ও ইটভাটার কাঁচা ইটের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতির আশংকা করছেন জেলা কৃষি বিভাগ ও স্থানীয়রা। তবে এখনও আশ্রয়ন কেন্দ্রে নিরাপদে রয়েছে বিভিন্ন চরাঞ্চলের প্রায় ৩০ হাজার মানুষ। পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত এসব মানুষদের আশ্রয়ন কেন্দ্র না ছেড়ে যেতে বলা হয়েছে।

জেলা কৃষি সম্প্রসারন অধিদপ্তরের অতিরক্তি উপ-পরিচালক কিশোর কুমার মজুমদার জানান, ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের প্রভাবে বৃষ্টি অব্যাহত থাকায় আমন ধান ও শীতকালীন সবজির ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতির আশংকা করা হচ্ছে। ক্ষয়ক্ষতির নিরুপনের কাজ চলছে।