লক্ষ্মীপুরে বিয়ে বাড়িতে মারামারি, জরিমানা দিয়ে কোলাকুলি

নিজস্ব প্রতিবেদক :

লক্ষ্মীপুরে বিয়ে বাড়ির মঞ্চে বরের হাত ধোয়ার সম্মানি (টাকা) কম দেওয়া নিয়ে মারামারির ঘটনায় থানায় সালিস বৈঠক হয়েছে। বর মোরশেদুল আলম মুসার লিখিত অভিযোগের প্রেক্ষিতে রবিবার (২৮ জুলাই) দুপুরে সদর মডেল থানায় এ বৈঠক হয়।

বৈঠকে কনের মামা তোফায়েলের ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। তাৎক্ষনিক ৫ হাজার টাকা পরিশোধের পাশাপাশি উভয় পক্ষকে কোলাকুলি করেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, লক্ষ্মীপুর পৌরসভার ১ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. গোলাম মোস্তফা, ২ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর জিয়াউর রহমান শিপন, বরের বাবা আবদুল মুনাপ, ভাই মো. ফারুক ও কনের বাবা আবু তাহের প্রমুখ।

থানা সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার (২৬ জুলাই) লক্ষ্মীপুর পৌরসভার সাহাপুর এলাকার তানিয়া আক্তারের সঙ্গে বাঞ্চানগর এলাকার মোরশেদুল আলম মুসার বিয়ের আয়োজন করা হয়। ওই সময় মঞ্চে বরের হাত ধোয়ার সম্মানি (টাকা) কম দেওয়ায় কনে পক্ষের লোকজন উত্তেজিত হয়ে পড়ে। একপর্যায়ে কনের মামা তোফায়েলসহ কয়েকজন বর ও বরযাত্রীদের ওপর হামলা চালিয়ে ১২ জনকে আহত করে। এতে বরের পাঞ্জাবি ও পায়জামা ছিঁড়ে ফেলার পাশাপাশি সাজ-গয়না তছনছ করা হয়। মারামারির সময় বরপক্ষের দুইটি স্মার্ট মোবাইল ফোন সেট, ১২ হাজার টাকা ও স্বর্ণালংকার ছিনিয়ে নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে।

লক্ষ্মীপুর পৌরসভার কাউন্সিলর গোলাম মোস্তফা বলেন, থানায় সালিসি বৈঠকে দুই পক্ষের সঙ্গে কথা বলে মারামারির ঘটনা মীমাংসা করা হয়েছে। সামান্য জরিমানার পরে দুই পক্ষকেই কোলাকুলি করিয়ে মিলিয়ে দেওয়া হয়।

লক্ষ্মীপুর সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) একেএম আজিজুর রহমান মিয়া বলেন, নিজেদের ভুল বোঝাবুঝিতেই বিয়ে বাড়িতে মারামারি হয়েছে। সালিসি বৈঠকে ঘটনাটি মীমাংসা করে দেওয়া হয়। উভয় পক্ষের সম্মতিতে ক্ষতিপূরণ হিসেবে কনের মামার জরিমানা করা হয়েছে।

শীর্ষ সংবাদ/এফএইচ