লক্ষ্মীপুরে ঝড়ে ৩ শতাধিক ঘর-বাড়ী বিধ্বস্ত : ঘর চাপা পড়ে এক বৃদ্ধা নিহত : দেখুন এক্সক্লুসিভ ভিডিও

নিজস্ব প্রতিবেদক :  

লক্ষ্মীপুরে শনিবার রাত সাড়ে ৩টা থেকে সকাল ৮টা পর্যন্ত বয়ে যাওয়া ঘূর্ণিঝড়ে ৩ শতাধিক ঘর-বাড়ী বিধ্বস্ত হয়েছে।

এ সময় ঘর চাপা পড়ে চর পোড়াগাছা ইউনিয়ন থেকে চর আলগী ইউনিয়নের নেয়ামতপুর এলাকায় বেয়াইর বাড়ীতে বেড়াতে আসা আনোয়ারা বেগম (৭৫) নামের এক বৃদ্ধা নিহত হয়েছেন। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রফিকুল হক।

এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে ↓ ক্লিক করুন…      

ঝড়ে রায়পুর ও রামগতিসহ জেলার বিভিন্ন স্থানে শতাধিক গাছ-পালা উপড়ে পড়েছে।

ঘূর্ণিঝড় ফণীর প্রভাবে মেঘনা নদীর পানি উচ্চতা ৪/৫ ফুট বেড়ে যাওয়ায় জেলার রামগতি, কমলনগর, সদর ও রায়পুর উপজেলার নিম্নঅঞ্চল প্লাবিত হয়েছে।

রায়পুর উপজেলার টুনুরচর, চর কাছিয়া, চর জালিয়া, চর ঘাসিয়া, সদর উপজেলার চর রমণী মোহন, চর মেঘা, রামগতি উপজেলার চর আলগী, বিচ্ছিন্ন দ্বীপ চর আবদুল্লাহ, চর গজারিয়া, তেলিরচর ও বয়ারচর এলাকার ঘর-বাড়ীগুলোতে জোয়ারের পানি ঢুকে পড়ায় মানুষ পানিবন্দী হয়ে পড়েছে।

ঝড়ে চর পোড়াগাছা ইউনিয়নের মালেক মোল্লা উচ্চ বিদ্যালয়ের একটি টিনসেড ঘরও বিধ্বস্ত হয়েছে।

এছাড়াও প্রবল জোয়ারের ফলে কমলনগর উপজেলার মাতাব্বরহাট এলাকার মেঘনানদীর তীর রক্ষা বেড়ীবাঁধটিতে আংশিক ধ্বস দেখা দেয়ায় এলাকার লোকজনের মাঝে আতংক বিরাজ করছে।

জেলা ও উপজেলা প্রশাসন ঘর-বাড়ী বিধ্বস্ত ও পানিবন্দী এলাকার লোকজনকে উদ্ধার করে বিভিন্ন আশ্রয় কেন্দ্রে নিয়ে আসার উদ্যোগ গ্রহণ করেছেন।

শুক্রবার দুপুর থেকে জেলার বেশির ভাগ এলাকা বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন রয়েছে।