লক্ষ্মীপুরে পথচারীদের হৃদয়ে এ্যানি ও তানিয়া : দেখুন ভিডিও

নিজস্ব প্রতিবেদক :
পথচারীদের হৃদয়ে স্থান করে নিলেন লক্ষ্মীপুরে প্রথম বারের মতো দায়িত্ব প্রাপ্ত নারী ট্রাফিক পুলিশ এ্যানি ও তানিয়া। সড়কে দুর্ঘটনা রোধে ও যানজট নিয়ন্ত্রণে লক্ষ্মীপুরে প্রথমবারের মতো এই দুইজন নারী ট্রাফিক পুলিশ নিয়োগ দেয়া হয়েছে। সম্প্রতি তারা যোগদান করেন লক্ষ্মীপুর জেলা পুলিশ লাইনে। দুঃসাহসী ভূমিকা নিয়ে পুরুষের পাশাপাশি তারাও রাস্তায় নিষ্ঠার সাথে দায়িত্ব পালন করছেন।

এ চ্যালেঞ্জিং পেশায় কাজ করতে নারী পুলিশরা যেমন খুশি। তেমনি নারী অধিকার রক্ষায় এটি অগ্রণী ভূমিকা রাখবে বলে মনে করেন সচেতন মহল।

নিচের ছবিতে ক্লিক করে দেখুন দুঃসাহসী সেই দুই নারী ট্রাফিক পুলিশের দায়িত্বরত ভিডিও…

জানা যায়, শহরের ঝুমুর সিনেমাহল, দক্ষিণ ও উত্তর তেহমুনী এলাকা ট্রাফিক পুলিশ সদস্যরা দক্ষতার সাথে দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছেন। পাশাপাশি জেলার সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ ও যানজট এলাকা ধরা হয় ঝুমুর সিনেমা হল ট্রাফিক চত্বরকে। তাই ওইসব স্থানেই ট্রাফিক পুলিশের এ দুই নারীকে নিযুক্ত করা হয়েছে। তারাও রাস্তার দুই পাশের পথচারীদের নিরাপদে পারাপার জন্য সহযোগিতার গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছে।

পুরুষ সহকর্মীরা তাদের সহযোগিতা করছেন উল্লেখ করে নারী ট্রাফিক পুলিশ এ্যানী বলেন, পুরুষ সার্জেন্ট ও ট্রাফিক সদস্যরা তাদের সবকিছু শিখিয়ে দিচ্ছেন। কিভাবে মামলা করতে হবে? কেমন করে চালকদের সঙ্গে ব্যবহার করতে হবে? কিভাবে সড়কের একপাশ থেকে অন্যপাশের পথচারী পারাপার করতে হবে সেবিষয়ও দিকনির্দেশনা দিচ্ছেন।

জেলা ট্রাফিক পুলিশের ইন্সপেক্টর (টিআই) মামুন আল-আমিন বলেন, স্কুল-কলেজের ছাত্র-ছাত্রী, সাধারণ পথচারী, নারী শিশু ও বয়স্ক মানুষকে নিরাপদে রাস্তা পারাপার করার জন্য দায়িত্ব পালন করছেন এ্যানী ও তানিয়া।

লক্ষ্মীপুর পুলিশ সুপার আ.স.ম মাহাতাব উদ্দিন বলেন, পুরুষের চেয়ে নারীরাও কম নয়। তারাও পুরুষ ট্রাফিক সদস্যর মতো কাজ করে। আমরা এ প্রথম দুইজন নারী ট্রাফিক সদস্য পেলাম। তারা দায়িত্বশীল ভাবে কাজ করছে। ভবিষ্যৎ আরো বাড়ানো হবে নারী ট্রাফিক সদস্য।