কাশ্মির বিতর্কে ঘি ঢাললেন আফ্রিদি!

Print Friendly, PDF & Email

কাশ্মির নিয়ে পাকিস্তান-ভারতের দীর্ঘদিনের বিতর্কে এবার নতুন করে ঘি ঢাললেন সাবেক পাক ক্রিকেট তারকা শহীদ আফ্রিদি। কাশ্মিরকে অন্য দেশের মাটি উল্লেখ করে সাবেক এই পাক ক্রিকেট অধিনায়ক বলেছেন, ‘পাকিস্তান কাশ্মিরকে চায় না…এমনকি পাকিস্তান তার চারটি প্রদেশও ঠিকভাবে পরিচালনা করতে পারে না।

লন্ডনে ব্রিটিশ পার্লামেন্টে পাক শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে নিজের দেশকে নিয়ে করা ৩৮ বছর বয়সী আফ্রিদির এ ধরনের মন্তব্যে বিব্রতকর পরিস্থিতি তৈরি হয়। এছাড়া আফ্রিদি কাশ্মির ইস্যুতে এমন এক সময় বিতর্কিত মন্তব্য করে বসলেন যখন পাকিস্তানের নতুন প্রধানমন্ত্রী হিসেবে ক্ষমতায় এসেছেন সাবেক ক্রিকেট কিংবদন্তি ইমরান খান।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পোস্ট করা এক ভিডিওতে অাফ্রিদিকে বলতে শোনা যায়, ‘আমি বলছি, কাশ্মিরকে চায় না পাকিস্তান। তবে এটা ভারতকেও দেয়া যাবে না। কাশ্মিরকে স্বাধীন হতে দিন। এতে অন্তত মানবতা বাঁচবে। মানুষকে মরতে দেয়া যাবে না…পাকিস্তান কাশ্মিরকে চায় না…এমনকি চারটি প্রদেশকেও পরিচালনা করতে পারে না পাকিস্তান।’

তিনি বলেন, ‘সবচেয়ে বড় বিষয় হচ্ছে মানবতা। সেখানে মানুষ মারা যাচ্ছে, এটা কষ্টকর। যে কোনো মৃত্যুই কষ্টের, তা যে সম্প্রদায়েরই হোক না কেন।’

চলতি বছরের এপ্রিলে কাশ্মিরে ‘ভয়াবহ এবং উদ্বেগজনক পরিস্থিতি’ তৈরি হয়েছে দাবি করে জাতিসংঘের হস্তক্ষেপ কামনা করে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পোস্ট দেন শহীদ আফ্রিদি। ওই পোস্টের পর সাবেক এই পাক অধিনায়কের সমালোচনা করেন অনেক ভারতীয়।

২০১৬ সালে আফ্রিদি বলেছিলেন, ‘কাশ্মিরের অনেক ভক্ত পাকিস্তানের ক্রিকেটকে সমর্থন করেন।’ তখন আফ্রিদির ওই টুইটের জবাবে ভারতীয়রা বলেন, ‘নিজের মাটিতে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের লাগাম টানতে ব্যর্থ পাকিস্তান। ২৬/১১ মুম্বাই হামলার পরিকল্পনাকারী হাফিজ সাইদকে নির্বিঘ্নে চলাফেরার সুযোগ দিয়েছে।’

সূত্র : এনডিটিভি।