পরীমণি সাহস জুগিয়েছে, শাকিব আগলে রেখেছে: রনি

Print Friendly, PDF & Email

আমার ফিল্মের যাত্রাটা আকস্মিকভাবে তুমুল আলোচিত, কিন্তু ফুল বিছানো ছিল না। ফুল বিছানো রাস্তা হয়তো সেভাবে কারোরই থাকে না, কিন্তু আমার বেলায় সেটা ছিলো অনেক অনেক বেশি কাঁটায় ভরা। অনেকে তার ছিটেফোঁটা জানে, অনেকে জানেই না।

একই সাথে আমার সেই অধ্যায়টা ছিল অসংখ্য ভুলে ভরা। অতীত নিয়ে বাস করলে কখনো ভবিষ্যতে এগিয়ে যাওয়া যায় না। আমি এটা বিশ্বাস করি।

আমার ক্যারিয়ারের এই দ্বিতীয় অধ্যায়ে কয়েকজন মানুষের সাপোর্ট আমাকে উঠে দাঁড়াতে সাহায্য করেছে। তাদের সবার নাম প্রকাশ করছি না সঙ্গত কারণে। কিন্তু আমি তাদের কাছে চিরকৃতজ্ঞ থাকবো।

কিন্তু দু’জন মানুষের কথা বলতে চাই খুব ছোট্ট করে, দু লাইনে। একজন, পরীমনি, ও আমাকে সাহস যুগিয়েছে কামব্যাক করতে যখন আমি হতাশায় চলচ্চিত্র ছেড়েই দিতে চেয়েছি।

অন্যজন আমাদের সুপারস্টার শাকিব খান। তিনি আমাকে যেভাবে আগলে রেখে আবার নিয়মিত কাজের মধ্যে এনে ব্যস্ত কর্মজীবন দিয়েছেন সেটা কোন আপন ভাইও তার ভাইয়ের জন্য করে না।

‘শাহেনশাহ’ ও ‘বসগিরি ২’ শীর্ষক দুটি বিশাল বাজেটের ছবি এখন আমার হাতে। পরপরই দু’টি ছবির শ্যুটিং… সর্বোচ্চ বাজেটও পেয়েছি দু’টি ছবিতেই…

আমার এই নতুন যাত্রায় দু’টি ছবিই আমি করতে চাই ভালো গল্পের, ভালো মানের। সেলিম ভাইকে ধন্যবাদ ‘শাহেনশাহ’র মত একটি বড় প্রজেক্ট পরিচালনার দায়ভার আমার হাতে দেবার জন্য।

আর টপি ভাইয়ের কাছে কৃতজ্ঞ চলচ্চিত্রের এই সময়ে বাংলাদেশের সর্বোচ্চ বাজেটে বসগিরি সিরিজের দ্বিতীয় কিস্তি ‘বসগিরি ২’ নির্মাণের দায়িত্ব আমাকে দেয়ায়।

অনেক কাজ সামনে আমাদের। ভালো চলচ্চিত্র আমাদের উপহার দিতে হবে দর্শকদের।
জয় হোক বাংলা চলচ্চিত্রের।

(নির্মাতা শামীম আহমেদ রনির ফেসবুক থেকে সংগৃহীত)