‘নির্বাচন নিয়ে আতঙ্ক ছড়ালে হাত ভেঙে দেয়া হবে’

Print Friendly, PDF & Email

র‌্যাবের মহাপরিচালক (ডিজি) বেনজীর আহমেদ বলেছেন, নির্বাচন নিয়ে আতঙ্কিত হওয়ার কিছু নেই। নির্বাচন একটি পলিটিকাল প্রসেস। একটি গণতান্ত্রিক দেশে প্রতি পাঁচ বছর পরপর একটি নির্বাচন হবে। নির্বাচিত সরকার ক্ষমতায় আসবে এটাই নিয়ম। আমাদেরকে অনেকেই আতঙ্কগ্রস্থ করার চেষ্টা করছে। আমি বলছি কেউ আতঙ্কগ্রস্থ হবেন না। যারা আতঙ্কগ্রস্থ করার চেষ্টা করছে তাদের প্রত্যেকের হাত আমরা ভেঙে দেব।

আজ রবিবার বিকেলে টুঙ্গীপাড়ায় বঙ্গবন্ধু ভবনে স্থানীয়দের সাথে মতবিনিময়কালে র‌্যাবের মহাপরিচালক (ডিজি) বেনজীর আহমেদ এসব কথা বলেন।
এর আগে বিকেল পৌনে পাঁচটায় হেলিকপ্টারযোগে ঢাকা থেকে টুঙ্গীপাড়ায় পৌছান সদ্য সচিব পদমর্যদায় উন্নীত হওয়া র‌্যাবের মহাপরিচালক বেনজীর আহমেদ ও ঢাকা মেট্রেপলিটন পুলিশ কমিশনার মিয়া মো. আছাদুজ্জামান।
টুঙ্গীপাড়ায় পৌছে বিকেল পাঁচটায় তারা জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধী সৌধ বেদীতে পূস্পস্তবক অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। পরে ১৫ আগষ্ট বঙ্গবন্ধুসহ তার পরিবারের নিহত সদস্যদের রুহের মাগফেরাত কামনা করে ফাতেহা পাঠ ও মোনাজাত করা হয়।

বেনজীর আহমেদ আরো বলেন, এদেশের মানুষ শান্তিপূর্ণভাবে তাদের ভোটধিকার প্রয়োগ করবে। আমাদের দৃঢ় বিশ্বাস তারা উন্নয়নের পক্ষে ভোট দেবে, সমৃদ্ধির পক্ষে ভোট দেবে,তারা অগ্রগতির পক্ষে ভোট দেবে।যাতে করে এই দেশ থেকে দারিদ্রতা হটানো যায়। সেই লক্ষ্যে যারা কাজ করে তাদেরকেই জনগণ সরকারে দেখতে পছন্দ করবে-এটাই আমরা প্রত্যাশা করি। আমরা বিশ্বাস করি যে, আমাদের দেশে উন্নয়নের যে অগ্রযাত্রা শুরু হয়েছে সেটা অব্যাহত থাকবে এবং ২০২১ সালের মধ্যে আমরা মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হব।

এ সময় গোপালগঞ্জ জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান চৌধুরী এমদাদুল হক, জেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক মাহাবুব আলী খান, গোপালগঞ্জ পৌরসভার মেয়র কাজী লিয়াকত আলী, টুঙ্গীপাড়া পৌরসভার মেয়র  শেখ আহমেদ হোসেন মির্জা, গোপালগঞ্জ সদর উপজেলা চেয়ারম্যান শেখ লুৎফর রহমান বাচ্চু, টুঙ্গীপাড়া উপজেলা চেয়ারম্যান গাজী গোলাম মোস্তফা, টুঙ্গীপাড়া উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি শেখ আব্দুল হালিম, টুঙ্গীপাড়া উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যান সোলায়মান বিশ্বাস, সাবেক পৌর-মেয়র ইলিয়াছ হোসেন, গোপালগঞ্জ সদর উপজেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম মিটু, সদর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান তাসবিরুল হুদা বাবুসহ পুলিশ প্রশাসন ও র‌্যাবের উর্দ্ধতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।