এখনও আমরা মরে যাইনি, অমানুষ হয়ে যাইনি

Print Friendly, PDF & Email

এয়ারপোর্ট থেকে গত সোমবার দুপুর ১টায় বের হয়ে বাসায় আসতে রাত ১০টা ৩০ বেজে যায়। কারণ রোড ব্লক করা ছিল, ব্লক করার কারণটা সবারই জানা। কিন্তু অন্য সময় জ্যামে বসে থাকতে অনেক বিরক্ত লাগলেও সেদিন মোটেও খারাপ লাগেনি। কিছুটা অসুস্থবোধ করলেও জ্যামে বসে মনে মনে খুব গর্ববোধ করছিলাম এই ভেবে এখনও আমরা মরে যাইনি, সবাই অমানুষ হয়ে যাইনি।

এখনও আমরা অন্যায়ের বিরুদ্ধে সবাই এক হয়ে প্রতিবাদ করতে পারি। সিস্টেমের নিচে আমাদের বিবেক চাপা পড়েনি, কিন্তু বাসের নিচে আমাদের জীবন চাপা পড়ে যায় কত সহজে। এতো সহজে তো চাপা পড়ার কথা না আমাদের জীবন।

এতকিছুর পর যখন আমরা ন্যায়বিচার এর জন্য রাজপথে নামি তখন আমাদের মতো নিরীহ মানুষ বললে ভুল হবে আমাদের ছোট ছোট ভাই-বোনদের যারা কী-না আগামী দিনের ভবিষ্যৎ তাদের উপর লাঠি-পেটা করা হয়। প্রতিবার অন্যায় এর পর শুধু আশ্বাস দেয়া হয় অন্যায়কারীদের ব্যবস্থা নেয়া হবে কিন্ত পরে ব্যবস্থা নেয়া হয় না।

আমি মনিপুর স্কুল এবং আদমজী ক্যান্টনমেন্ট কলেজ এর প্রাক্তন ছাত্রী ছিলাম। আস্থা এর সাথে বলতে পারি আমি তাই করতাম এখন ওরা যেমনটা করছে ওদের সহপাঠীদের জন্য।

মোটের ওপর আমরা মানুষ এবং বাঁচার মতো একটাই জীবন আমাদের। দেশের অবস্থা ও সরকারের সীমাবদ্ধতা উপলব্ধির মতো আমাদের মনে যথেষ্ঠ দয়া আছে। শিক্ষার্থীদের ওপর এতটা নির্মম হবেন না, তারা আমাদের ভবিষ্যৎ। আমরা শুধু প্রয়োজন দোষীদের বিচার ও নিজ জীবনের নিরাপত্তা।

(ফেসবুক থেকে সংগৃহীত)