বিভ্রান্ত করার জন্য ক্ষমা চাইলেন জাপানি নভোচারী

Print Friendly, PDF & Email

মধ্যাকার্ষণ শক্তির অনুপস্থিতিতে মহাকাশে নভোচারীদের মেরুদণ্ডে কিছুটা বৃদ্ধি লক্ষ্য করা যায়। এই বৃদ্ধিটা কয়েক সেন্টিমিটার পর্যন্ত হতে পারে। তবে পৃথিবীতে ফিরে এলেই এই পরিবর্তনটা আগের অবস্থা ফিরে আসে। এটা নতুন কিছু নয়। ৪১ বছর বয়সী জাপানি নভোচারী কানাই দাবি করেছেন, তিনি সাড়ে তিন ইঞ্চি (৯ সেন্টিমিটার) পর্যন্ত বেড়েছেন। আর এটা নিয়েই শুরু হয়েছে শোরগোল। কারণ এর আগে কোনো নভোচারীরই এতোটা লম্বা হওয়ার ঘটনা নেই।ছয় মাসের মিশনে গত মাসে মহাকাশে যান কানাই। সোমবার টুইটারে তিনি একটি পোস্টে লিখেন- আমি ‘একটি বড় ঘোষণা’ দিচ্ছি।

ওই টুইটে কানাই লিখেন, মহাকাশে আমার উচ্চতা মাপা হয়েছে। যেকোনোভাবেই আমি ৯ সেন্টিমিটার পর্যন্ত লম্বা হয়েছি। মহাকাশে আমার তিন সপ্তাহে আমি অনেক লম্বা হয়েছি। যেটা আমি স্কুল জীবনের পর আর কখনো ঘটতে দেখিনি। আমি এতে একটু উদ্বিগ্ন। মহাকাশযান সয়ুজের সিটে হয়তো আমার জায়গা হবে না।পরে এ নিয়ে ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়েন তিনি। তার এই উচ্চতা বৃদ্ধি নিয়ে খবরও ছেপেছে বিশ্ব গণমাধ্যম। এরই পরিপ্রেক্ষিতে মিথ্যা তথ্য দেয়ার জন্য ক্ষমা চেয়েছেন জাপানি এই নভোচারী। পরে তিনি জানান, তিনি ৯ সেন্টিমিটার নয়, লম্বা হয়েছেন ২ সেন্টিমিটার।বাধ্য হয়ে এ বিষয়ে আরেকটি টুইট করেন কানাই। সেখানে কোনো ব্যাখ্যা না দিয়েই তিনি লিখেন, আমার এই ভুল পরিমাপ অনেক বড় বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে। তাই এই মিথ্যা সংবাদের জন্য ক্ষমা চাচ্ছি।তিনি আরো লিখেন, এখন দেখা যাচ্ছে আমি সয়ুজ বসতে পারবো। তাই আমি নিশ্চিন্ত।