ঢাকাSunday , 18 December 2022
  1. অন্যান্য
  2. অপরাধ
  3. অর্থ ও বাণিজ্য
  4. আইন-বিচার
  5. আন্তর্জাতিক
  6. আবহাওয়া ও কৃষি
  7. খেলাধুলা
  8. গনমাধ্যাম
  9. চাকরি
  10. জাতীয়
  11. ধর্ম
  12. নির্বাচন
  13. প্রবাসের খবর
  14. ফিচার
  15. ফ্যাশন
biggapon বিজ্ঞাপন
আজকের সর্বশেষ সবখবর
  • উলিপুরে সবজিতে স্বস্তি-ক্রেতার ভীড়

    Link Copied!

    কুড়িগ্রামের উলিপুরে উপজেলার পৌরসভাধীন বড় সবজির বাজারে শীত কালীন সবজি প্রচুর পরিমাণ আমদানি হওয়ায় স্বস্তিতে নিঃশ্বাস ছাড়ছেন সকল শেণীর ক্রেতারা। সবজি ক্রয় করতে ক্রেতার ভীড় দেখা যায়।

    সরেজমিন উপজেলার পৌরসভাধীন বড় সবজির বাজার সহ অন্যান্য ছোট বড় বাজার গুলোতে গিয়ে দেখা যায়, সবজির বাজারে সবজির মূল্য প্রায় নিম্নগতি এবং হাতের লাগালে থাকায় সবজি ক্রেতার উপচে পড়া ভীড় দেখা যায়। সারাদিন পাইকেরি ও খুচরায় সবজি বিক্রি করতে ব্যাস্ত সময় পার করছেন সবজি ব্যাবসায়ীরা। তারা বলেন বর্তমান সবজির প্রচুর পরিমাণ আমদানি হওয়ায় দামও হাতের লাগালে থাকায় সকল শ্রেণির ক্রেতা বিভিন্ন ধরনের সবজি কিনছেন। পাইকারি দরে সবজি বিক্রেতারা জানান উপজেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে বিভিন্ন ধরনের সবজি আমদানি হওয়ায় সবজির বাজার অনেক কমে গেছে। ক্রেতারা অনেক স্বস্তিতে সবজি কিনছেন বলে জানান তারা।

    উপজেলার পৌরসভাধীন বড় সবজির বাজারে সবজি পাইকেরিতে ও খুচরায় বিক্রি হচ্ছে পাইকারিতে আলু কেজি প্রতি ১৯ টাকা খুচরায় ২৫ টাকা, পাইকারিতে কেজি প্রতি মরিচ ২৫ টাকা খুচরায় কেজি প্রতি ৩৫ টাকা, পাইকারিতে কেজি প্রতি মুলা ৭ টাকা খুচরায় কেজি প্রতি ১০ টাকা, পাইকারিতে বেগুন ৮ টাকা খুচরায় ১২ টাকা, পাইকারিতে পাতা কপি প্রতি পিচ ২০ টাকা খুচরায় প্রতি পিচ ২৫ টাকা, পাইকারিতে ফুল কপি প্রতি কেজি ২৫ টাকা খুচরায় প্রতি কেজি ৩০ টাকা, পাইকারিতে পিয়াজ কেজি প্রতি ৪০ টাকা খুচরায় প্রতি কেজি ৫০ টাকা, পাতা পিয়াজ পাইকারিতে কেজি প্রতি ১৮ টাকা খুচরায় ২৫ টাকা, পাইকারিতে রসুন কেজি প্রতি ৬০ টাকা খুচরায় কেজি প্রতি ৭০ টাকা, পাইকেরিতে সিম কেজি প্রতি ৪০ টাকা খুচরায় কেজি প্রতি ৫০ টাকা, ধনে পাতা পাইকেরিতে কেজি প্রতি ৩০ টাকা খুচরায় কেজি প্রতি ৪০ টাকা এবং আদা পাইকেরিতে কেজি প্রতি ১০০ টাকা খুচরায় কেজি প্রতি ১২০ টাকা দরে বিক্রি করা হচ্ছে।

    আরও পড়ুন-    উলিপুরে আমন ধান কাটার উৎসব-বাম্পার ফলন

    সবজি ক্রেতা উপজেলার ধরনিবাড়ি ও তবকপুর থেকে আসা ফয়জার মিয়া (৬৫) এবং আজিমুদ্দিন (৭০) বলেন, কিছুদিন আগে সবজির বাজার এতই বেশি ছিল যে বাজারে সবজি কিনতে সাহস পাচ্ছিলাম না। তারা বলেন আমরা গরিব মানুষ টাকা আয় করতে পারিনা দাম বেশি থাকলে কিভাবে কিনে খাব। এখন বিভিন্ন ধরনের সবজির দাম কমেছে অল্প টাকায় অনেক সবজি কিনতে পেরেছি। এরকম সবজির বাজার সারা বছর কম থাকলে আমাদের মত গরিব অসহায় মানুষ কিনে খেতে পারতাম বলে জানান তারা।

    পাইকেরিতে সবজি বিক্রেতা জয়নাল মিয়া বলেন, এখন বাজারে প্রচুর পরিমাণ বিভিন্ন ধরনের সবজির আমদানি হয়েছে দামও হাতের লাগালে তাই ক্রেতার অনেক ভীড় দেখা যাচ্ছে। আমরা কিছুদিন আগে সবজি নিয়ে বসে ছিলাম কিন্তু দাম বেশি থাকায় ক্রেতার উপস্তিতি একদম কম ছিল। বর্তমান এতই ক্রেতার উপস্থিতি যে সারাদিন পাইকেরি ও খুচরায় বিক্রি করতে ব্যাস্ত সময় পার করতে হচ্ছে বলে জানান তিনি।”

    শীর্ষসংবাদ/নয়ন

    biggapon বিজ্ঞাপন

    Share this...

    বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।
    ঢাকা অফিসঃ ১৬৭/১২ টয়েনবি সার্কুলার রোড, মতিঝিল ঢাকা- ১০০০ আঞ্চলিক অফিস : উত্তর তেমুহনী সদর, লক্ষ্মীপুর ৩৭০০